চাঁদপুরের অহিদুর রহমান প্রান্তর মরদেহ ভোলায় উদ্ধার

চাঁদপুরের অহিদুর রহমান প্রান্তর মরদেহ ভোলায় উদ্ধার

চাঁদপুর সরকারি কলেজের বিএসএস দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র মো. অহিদুর রহমান প্রান্ত (২২)-এর মরদেহ ভোলা জেলার তজুমদ্দিন উপজেলার মেঘনা নদী থেকে সোমবার সকাল ১০টায় উদ্ধার করেছে কোস্টগার্ড। তবে আগামী রবিবার (১১ সেপ্টেম্বর) ডিএন টেস্টের পর শতভাগ নিশ্চিত হয়ে পরিবারের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে বলে জানিয়েছে স্থানীয় পুলিশ প্রশাসন।

প্রান্ত চাঁদপুর শহরের কোড়ালিয়া এলাকার বাসিন্দা জাতীয় শ্রমিকলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও রেলওয়ে শ্রমিকলীগ চাঁদপুর জেলা শাখার সভাপতি এবং কমিউনিটি পুলিশিং চাঁদপুর অঞ্চল-৫ এর সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রহমান (অবসরপ্রাপ্ত টিটিই)-এর ছেলে। তবে প্রান্ত তার মায়ের মৃত্যুর পর বড় স্টেশন রেলওয়ে ক্লাবের পেছনে তার পিতার পূর্ব বসবাসকৃত বাসায় থাকতেন।

অহিদুর রহমান প্রান্ত নিখোঁজ হওয়ার পর গত ৫ সেপ্টেম্বর তার পিতা মো. মাহবুবু রহমান চাঁদপুর মডেল থানায় নিখোঁজ ডায়েরি করেন। ডায়েরিতে উল্লেখ করা হয়- গত ২ সেপ্টেম্বর দুপুর সোয়া দুইটার দিকে কাউকে কোন কিছু না জানিয়ে প্রান্ত কোথাও চলে যায়। সম্ভাব্য সকল স্থানে তাকে খোঁজা হয়েছে, কোথাও পাওয়া যায়নি।

এদিকে, প্রান্তের পরিবার সোমবার রাতে অনলাইনের বিভিন্ন মাধ্যমে জানতে পারে ভোলা জেলার তজুমদ্দিন থানায় মেঘনা থেকে কোস্টগার্ড একজনের মরদেহ উদ্ধার করেছে। উদ্ধারকৃত মরদেহ প্রান্তের ভেবে মঙ্গলবার সেখানে ছুটে যান তার বাবা মাহবুবুর রহমান ও তার বড় ভাই মো. জনি। সেখানে ওই মরদেহের পরনে থাকা পাজামা, পাঞ্জাবি ও হাতে থাকা ঘড়ি তার ছেলে বলে দাবি করেন পিতা মাহবুবুর রহমান।

কিন্তু সংশ্লিষ্ট থানার ওসি তাদের বলেন, যেহেতু মাথার চুল পড়ে গেছে এবং চেহারা বিকৃত এ জন্য পুরোপুরি নিশ্চিত হওয়া যাচ্ছে না। ডিএনএ টেস্টের রেজাল্ট পাওয়া গেলে মরদেহ হস্তান্তর করা যাবে।

Advertisement