বাসে আগুন দিয়ে নাইজেরিয়ায় ৩০ যাত্রীকে পুড়িয়ে হত্যা

বাসে আগুন দিয়ে নাইজেরিয়ায় ৩০ যাত্রীকে পুড়িয়ে হত্যা

নাইজেরিয়ায় বন্দুকধারীরা একটি বাসে আগুন ধরিয়ে দিয়ে কমপক্ষে ৩০ যাত্রীকে পুড়িয়ে হত্যা করেছে। গতকাল মঙ্গলবার এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ও স্থানীয়দের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, নাইজেরিয়ার সোকোতো প্রদেশের ডাকাতরা বিভিন্ন গ্রামে বহুবার এ ধরনের হামলা চালিয়েছে এবং হতাহতের ঘটনা ঘটিয়েছে। একই সঙ্গে রাস্তা ও মহাসড়কে ভ্রমণকারীদের ওপরও তারা হামলা চালিয়ে থাকে। এমনকি মুক্তিপণের জন্য দেশটির শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে শিক্ষার্থীদের অপহরণও করে থাকে এই ডাকাতেরা।

নাইজেরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় বরনো প্রদেশের পুলিশ বিভাগের মুখপাত্র সানুসি আবুবকর বলেন, সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা আগুন ধরিয়ে দেওয়ার সময় বাসটিতে ২৪ জন যাত্রী ছিল। আগুন ছড়িয়ে পড়ার পর আহত অবস্থায় সাতজন বাইরে বেরিয়ে আসতে সক্ষম হয়। আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

উদ্ধারে অংশ নেওয়া স্থানীয় দুজন বাসিন্দা বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানিয়েছেন, আগুন ধরিয়ে দেওয়ার সময় বাসটি যাত্রীতে পরিপূর্ণ ছিল। তাঁরা বলছেন, মৃতদেহগুলো এতটাই পুড়ে গেছে যে সেগুলোর পরিচয় শনাক্ত করাই কষ্টসাধ্য হয়ে পড়েছে।

নাইজেরিয়ার উত্তরাঞ্চলে ডাকাতি, হত্যা, লুটপাট, স্কুলের শিক্ষার্থীদের বন্দী ও জিম্মি করে মুক্তিপণ আদায়ের মতো অপরাধ প্রায় নিয়মিত ঘটনা হয়ে উঠেছে। এসব অপরাধ বন্ধে নাইজেরিয়ার কেন্দ্রীয় সরকার ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী যথাযথ পদক্ষেপ নিচ্ছে না বলে অভিযোগ রয়েছে।

নাইজেরিয়ায় ডাকাতেরা মোটরসাইকেলে ঘুরে বেড়ায় এবং বনে লুকিয়ে থাকে। সেখানে তারা প্রায়ই অপহৃতদের আটকে রাখে। 

সূত্র : রয়টার্স।

Advertisement