বিচ্ছিন্ন সহিংসতা গুলি নিহত ২ আহত ২০০

বিচ্ছিন্ন সহিংসতা গুলি নিহত ২ আহত ২০০
ছবি -যুগান্তর

বিচ্ছিন্ন সহিংসতা, গুলি, জাল ভোট ও কেন্দ্র দখলসহ নানা ঘটনায় চতুর্থ ধাপে ৮৩৬ ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) রোববার ভোটগ্রহণ হয়েছে। এসব ঘটনায় দুজন নিহত ও গুলিবিদ্ধসহ দুশতাধিক লোক আহত হয়েছেন। ঠাকুরগাঁওয়ে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষের সময় পুলিশের গুলিতে হামিদুল ইসলাম নামে একজন নিহত হয়েছেন। পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালিতে সংঘর্ষের সময় গুলিতে প্রাণ গেছে আরেকজনের। তবে অনেক স্থানেই শান্তিপূর্ণ ভোটও হয়েছে।

সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। ভোট চলাকালে কিশোরগঞ্জের ভৈরব, ফেনীর সোনাগাজী, চট্টগ্রামের লোহাগাড়া, রাজশাহী, নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার ও জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। কেন্দ্র দখল ও জালভোট দেওয়াসহ নানা অপরাধে জড়িত থাকার অভিযোগে ১১৫ জনকে আটক করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায় দায়িত্বে অবহেলার কারণে দুই প্রিসাইডিং অফিসারকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে নৌকায় প্রকাশ্যে সিল মারতে বাধ্য করেন আওয়ামী লীগ প্রার্থীর কর্মীরা।

এদিকে আনন্দ ও উৎসবমুখর পরিবেশে সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণ করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার। তিনি বলেন, সবকিছু মিলিয়ে আমরা দেখেছি নির্বাচনটা সুষ্ঠুভাবে হয়েছে, আনন্দমুখর পরিবেশে হয়েছে এবং জনগণের সম্পৃক্ততা ছিল। রোববার ভোটগ্রহণ শেষ হওয়ার পর রাজধানীর আগারগাঁওয়ের নির্বাচন ভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

সচিব জানান, প্রিসাইডিং অফিসারদের নিয়ন্ত্রণবহির্ভূত থাকার কারণে ১৫টি ভোটকেন্দ্র বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এ ধাপে ভোটকেন্দ্রের সংখ্যা ছিল ৯ হাজার ২২৪টি। সেই হিসাবে ০.১৬ শতাংশ ভোটকেন্দ্র বন্ধ করতে হয়েছে। তিনি বলেন, ভোটগ্রহণ চলাবস্থায় সহিংসতায় ২৯ ব্যক্তি আহত হয়েছেন। প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পালটা ধাওয়ায় তারা আহত হন। এসব ঘটনায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের হাতে ৬৩ জন আটক হয়েছে এবং নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পাঁচজনকে জরিমানা করেছে। এক প্রশ্নের উত্তরে সচিব জানান, সামনের দুই ধাপের ভোট আরও ভালো হবে।

এ সময় ইসির অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ, আইডিয়া প্রকল্পের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আবুল কাশেম মো. ফজলুল কাদের, জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগের মহাপরিচালক একেএম হুমায়ূন কবীর উপস্থিত ছিলেন।

রাঙ্গাবালী (পটুয়াখালী) : সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে রাঙ্গাবালীর চরমোন্তাজ ইউনিয়নের নয়ারচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে গুলি ছোড়ে পুলিশ। এসময় দুজন গুলিবিদ্ধ হন। এরমধ্যে একজন ঘটনাস্থলেই মারা যান। তার নাম খালেক হাওলাদার (৫৫)। তিনি নয়ারচর গ্রামের বাসিন্দা।

ঠাকুরগাঁও : বিকালে ঠাকুরগাঁওয়ের রাজাগাঁও ইউনিয়নে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এ সময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ গুলিতে হামিদুল ইসলাম (৬৫) নামের একজন নিহত হয়েছেন। ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার আখানগর ইউনিয়নের উত্তর ঝাড়গাঁও রহমানিয়া দাখিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ব্যালট পেপার ছিনতাইয়ের সময় বাবা-মেয়েকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় পরিস্থিতি উত্তপ্ত হলে ১৫ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়ে পুলিশ। গুলিতে আবুল হোসেন নামের এক কৃষক আহত হয়েছেন। আটকরা হলেন কাবুল ও তার মেয়ে কামরুন নাহার।

কুমিল্লা : সকাল সাড়ে ৯টার দিকে জেলার আদর্শ সদর উপজেলার পাচথুবি ইউনিয়নের শালধর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্র দখলে নিতে ১৫টি ককটেল বিস্ফোরণ করে সন্ত্রাসীরা। এ সময় পুলিশের সঙ্গে তাদের ধাওয়া-পালটা ধাওয়ায় কয়েকজন আহত হয়েছেন। চৌদ্দগ্রাম উপজেলার মিয়ার বাজার উচ্চ বিদ্যালয়ে ব্যালটে জোরপূর্বক সিল মারার অভিযোগ পাওয়া গেছে। একই উপজেলার কনকাপৈত ইউপির স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী বেলাল হোসেনের ভাই কামরুজ্জামানকে পিটিয়ে হাত-পা ভেঙে দিয়েছে নৌকার সমর্থকরা। উপজেলার গুণবতী ভোটকেন্দ্রে নৌকা-আনারস সমর্থকদের মাঝে ব্যাপক সংঘর্ষ ও গুলি বিনিময়ের ঘটনা ঘটে। শনিবার রাতে ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার মালাপাড়া ইউপিতে ৪৪ জন বহিরাগতকে আটক করেছে পুলিশ।

ফেনী ও সোনাগাজী : সোনাগাজী উপজেলার দক্ষিণ চরচান্দিয়া হোসাইনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের বাইরে দুপক্ষের সংঘর্ষে গুলিতে মা-শিশুসহ ১১ জন আহত হয়েছেন। গুলিবিদ্ধরা হলেন- শিশু আসমা আক্তার ও মা ফাতেমা আক্তার, মিজান, ইউসুফ, ফকির, শিপন, ইসমাইল, ছিদ্দিক, নবী, মিয়া সাহেব ও রাজ। শিশু আসমা ও তার মাসহ ৬ জন সোনাগাজী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিচ্ছেন। বাকিরা অন্যান্য হাসপাতালে ভর্তি হন। কেন্দ্রে বিশৃঙ্খলার কারণে চরচান্দিয়া ইউপির স্বতন্ত্র প্রার্থী হাজী আবু ইউসুফকে আটক করেছে পুলিশ। এছাড়া বিভিন্ন কেন্দ্রে প্রভাব বিস্তারের অভিযোগে ৬৬ জনকে আটক করা হয়েছে।

ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) : ভৈরব উপজেলার কালিকাপ্রসাদ ইউনিয়নের আতকাপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে নৌকায় প্রকাশ্যে সিল মারার ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ হয়েছে। এতে অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ কমপক্ষে ৪০ রাউন্ড ফাঁকা রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে। আহতদের মধ্যে রয়েছেন বিশাল, উজ্জ্বল, রফিক, সজল, আমির হামজা, বাক্কি মিয়া, সাইদ, শরিফ, আপন মিয়া ও মামুন মিয়া।

মোহনগঞ্জ (নেত্রকোনা) : বড়কাশিয়া-বিরামপুর ইউনিয়নের পানুর ভোট কেন্দ্রের বাইরে প্রতিপক্ষের হামলায় নৌকার সমর্থক ৫ জন আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে গুরুতর আহত আলী আহম্মদ, আবদুল লতিফ ও ইমন আহমদকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

লালমনিরহাট : হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী ইউনিয়নে নির্বাচনে দায়িত্বে অবহেলার অভিযোগে শফিকুল ইসলাম ও দেলোয়ার হোসেন নামের দুই প্রিসাইডিং অফিসারকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। এছাড়া নৌকার দুই এজেন্টসহ তিনজনকে আটক করা হয়েছে।

বাঘা (রাজশাহী) : বাঘা উপজেলার বাউসা বালিকা বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে এক মেম্বার প্রার্থীসহ ১০ জন আহত হয়েছেন। এরা হলেন-মেম্বার প্রার্থী আখের উদ্দিন, তার সমর্থক জুয়েল আলী, আলম আলী, সাব্বির হোসেন, তারিক হোসেন, শাহরিয়ার, সাগর হোসেন, লিখন হোসেন, দেলোয়ার ও প্রিন্স।

ভূঞাপুর (টাঙ্গাইল) : সকালে ভূঞাপুর উপজেলার ১০৫নং বঙ্গবন্ধু পূর্ব পুনর্বাসন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে নৌকায় প্রকাশ্যে সিল মারতে বাধ্য করেন আওয়ামী লীগ প্রার্থীর কর্মীরা। ভোটাররা জানান, অন্যথায় তারা হুমকি-ধমকি দিচ্ছে। এ বিষয়ে দায়িত্বরত প্রিসাইডিং কর্মকর্তাকে জানানো হলেও তিনি কোনো ব্যবস্থা নেননি। প্রিসাইডিং অফিসার খায়রুল ইসলাম বলেন, প্রকাশ্যে সিল না মারার জন্য বারবার অনুরোধ করা হয়েছে।

হবিগঞ্জ : বানিয়াচংয়ে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। উপজেলার খাগাউড়া ইউনিয়নের গুণই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ সংঘর্ষ হয়। এতে অন্তত ৫ জন আহত হয়েছেন।

সরিষাবাড়ী (জামালপুর) : সাতপোয়া ইউনিয়নের চুনিয়াপটল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও চরসরিষাবাড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্র, ভাটারা ইউনিয়নের ভেবলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও বারইপটল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এসব সংঘর্ষে অন্তত ১০-১৫ জন আহত হয়েছেন।

মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) : মঠবাড়িয়ার বড় মাছুয়া ইউনিয়নে শনিবার সন্ধ্যায় নৌকা প্রার্থীর সমর্থকদের হামলায় ৪ বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থক ও পুলিশসহ ২০ জন আহত হয়েছেন। ইউনিয়নের দক্ষিণ বড়মাছুয়া গ্রামের বটতলায় এ ঘটনা ঘটে।

পাবনা : পাবনা সদরের হেমায়েতপুর ইউনিয়নের একটি কেন্দ্রে প্রভাব বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগ প্রার্থী ও স্বতন্ত্র (বিদ্রোহী) প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ ও গোলাগুলি হয়েছে। এ ঘটনায় ৫ জন আহত হয়েছেন। বেলা ৩টার দিকে হেমায়েতপুর ইউনিয়নের চরঘোষপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে।

সিলেট : দুপুর সাড়ে ১২টায় বিয়ানীবাজার উপজেলার পাতন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ব্যালট পেপার ও ব্যালট বক্স ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেন স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা। এ সময় পুলিশ দুই রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে তাদের প্রতিহত করে। বিয়ানীবাজার উপজেলার শেওলা ইউনিয়নের দিঘলবাক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে জাল ভোট দিতে গিয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী চার কিশোরকে আটক করে। গোলাপগঞ্জ উপজেলার ফতেহপুর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের ফতেহপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্র দখলের ভিডিও ধারণের সময় সাংবাদিকদের ওপর হামলা ও ক্যামেরা ছিনিয়ে নেওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

আড়াইহাজার (নারায়ণগঞ্জ) : বিশনন্দী ইউনিয়নের বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রে সদস্য প্রার্থীদের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। অন্তত চারটি কেন্দ্রে প্রায় ৩৩টি ককটেল বিস্ফোরণ হয়। এসব ঘটনায় অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন।

সৈয়দপুর (নীলফামারী) : সৈয়দপুরে ভোটকেন্দ্রে সংঘর্ষে ৬ জন আহত হয়েছেন। উপজেলার খাতামধুপুর ইউনিয়নের ডাঙ্গাপাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে জাল ভোটের গুজবে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে এ সংঘর্ষ হয়।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ : ভোলাহাট উপজেলার গোহালবাড়ি ইউনিয়নে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এসময় পুলিশের গুলিতে ১০ জন আহত হয়েছেন। ইউনিয়নের খালেআলমপুর কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের মধ্যে চারজনকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে এবং ৬ জনকে ভোলাহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

রাজশাহী : দুর্গাপুরে ভোটারদের ভোট দিতে বাধা দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এছাড়া আওয়ামী লীগ ও স্বতন্ত্র প্রার্থীর কর্মীদের মধ্যে ধাওয়া-পালটা ধাওয়া, সংঘর্ষ হয়েছে। এতে অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। আহতদের দুর্গাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

লোহাগাড়া (চট্টগ্রাম) : লোহাগাড়ার ছয় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সহিসংসতায় ১৫ জন আহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে ৭ জনকে আশঙ্কাজনক অবস্থা চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অন্যদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

আরও বিভিন্ন স্থানে সহিংসতা : চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার আলুকদিয়া ইউনিয়নে ভোটকেন্দ্রের সামনে ছুরিকাঘাতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর দুই কর্র্মী আহত হয়েছেন। লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার পার্বতীনগরে বিষ্ণুনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার শফিক উল্যাহকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। রাজশাহীর চারঘাটে বিভিন্ন অপরাধে ৯ জনকে আটক করা হয়েছে। কুড়িগ্রামের বিভিন্ন ইউনিয়নে সহিংসতায় চারজন আহত হয়েছেন। পাঁচটি কেন্দ্র বাতিল করা হয়েছে।

Advertisement