পরিবহন ধর্মঘটে সরকারের যা করা দরকার

পরিবহন ধর্মঘটে সরকারের যা করা দরকার


পরিবহন মালিক সমিতি এই নাম টা যেনো বাংলাদেশের জন্য গলার কাঁটা হয়ে আছে কিছু থেকে কিছু হলেই তাদের হুমকি দমকি একটাই ধর্মঘট করা হটাৎ বন্ধ করে দেয়া বাস চলাচল। 

এই যেনো রাতারাতি ব্ল্যাকমেল করা , এইসকল পরিবহন মালিকরা কোটি কোটি টাকা আয় করে দেশ থেকে একটা পরিবহন দিয়ে শুরুকরে ২/৩ বছর পর ৪/৫ টা পরিবহনের মালিক হয়ে যায়। যার যত বেশি পরিবহন রাস্তায় তার দাপট ততই বেশি। 

তাদের এই ব্ল্যাকমেল বন্ধ করতে হলে সরকারকে আগে যা করতে হবে তা হলো চিন্নিহিত করতে হবে সেইসকল পরিবহনের মালিকদের আর তাদের সকল পরিবহনের লাইসেন্স বাতিল করে সরকারি পরিবহন স্থান্তর করতে হবে সেখানে এতে যদিও প্রচুর টাকার প্রয়জন হবে তার পরেও দিন শেষে সরকারকে এমন ব্ল্যাকমেল করতে পারবে না তারা আর শিক্ষা হবে সেই সকল পরিবহনের মালিকদের যারা নিজের খাবার প্লেটে নিজেই ছেদ করে।  

এমন করে দেশের সকল পরিবহনকে সরকারের আওতাধীন করতে হবে যেমনটা উন্নত দেশে হয়ে থাকে তাতে দেশের মানুষের বোগান্তির যেমন শেষ হবে তেমনি স্বল্প খরচে যাতায়েত ব্যবস্থাও হবে।  

আমরা সকলেই জানি যে সরকারি পরিবহন থেকে বেসরকারি মালিকানাদিন পরিবহন গুলো নিজেরদের মন গড়া ভাড়া আদায় করে যাত্রীদের থেকে, সরকারি হলে সেই সুযোগ আর থাকবে না , থাকবেনা এইরকম ব্ল্যাকমেলিং, থাকবেনা রাস্তায় বেপরোয়া গাড়িচলাচল , কমে যাবে দুর্গটনা ।

আর তাই এইসকল ভোগান্তি থেকে পার্মানেন্টলি মুক্ত হতে হলে সারাদেশে শুধু মাত্র BRTC পরিবহন বেবস্থা করতে হবে।
   

Advertisement